Home / বিবিধ / চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে বাল্যবিবাহ বন্ধ-মেহমানদের জন্য রান্নাকৃত খাবার এতিমদের মাঝে বিতরণ।।

চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে বাল্যবিবাহ বন্ধ-মেহমানদের জন্য রান্নাকৃত খাবার এতিমদের মাঝে বিতরণ।।

অনলাইন ডেস্ক: আবারও বিয়ে বাড়ির খাবার গেলো এতিমখানায় চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে।মেহমানদের জন্য রান্নাকৃত খাবার এতিমদের মাঝে বিতরণ করা হয় দশম শ্রেণিতে পড়ুয়া এক ছাত্রীর বাল্যবিবাহ বন্ধ করে।এই ঘটনা ঘটে সোমবার বিকালে উপজেলার কালচোঁ উত্তর ইউনিয়নের পিরোজপুর গ্রামে।

এই বাল্যবিবাহ বন্ধ করেন-উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) বৈশাখী বড়ুয়ার নির্দেশে, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সানজিদা মজুমদার।এই সময় তিনি প্রাপ্ত বয়স না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে না দেয়ার শর্তে ওই  মুচলেকা নেন ছাত্রীর বাবা-মায়ের কাছ থেকে।জানাযায়, পিরোজপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী বাল্যবিবাহ থেকে রক্ষা পাওয়া ওই ছাত্রী।তার বয়স ১৫ বছর ৯ মাস ২৭ দিন নবম শ্রেণির রেজিস্ট্রেশন কার্ড অনুযায়ী।তার বিয়ে হওয়ার কথা ছিলো আজ (সোমবার) বিকালে।খবর পেয়ে  তাৎখনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) বৈশাখী বড়ুয়া।

এই বাল্যবিবাহ বন্ধ করা হয় বরপক্ষ আসার আগেই উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সানজিদা মজুমদারসহ অন্যান্য সরকারি কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে।পরে এতিমদের জন্য পিরোজপুর দারুল উলুম কওমী মাদরাসা ও এতিমখানা কমপ্লেক্সে প্রদান করা হয় মেহমানদের জন্য রান্নাকৃত খাবার।

উপস্থিত ছিলেন এই সময় স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মানিক হোসেন প্রধানীয়া,পিরোজপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মনিরুজ্জামান পাটওয়ারীসহ স্থানীয় ইউপি সদস্য ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।উল্লেখ্য,উপজেলার হাটিলা পুর্ব ইনিয়নের লাউকরা গ্রামের দশম শ্রেণিতে পড়ুয়া এক ছাত্রীর বাল্যবিবাহ বন্ধ করা হয় গত শুক্রবার (২৫ অক্টোবর)।ওই ঘটনায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ছাত্রীর বাবাকে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং মেহমানদের জন্য রান্নাকৃত খাবার এতিমখানায় প্রদান করেন।

বি: দ্র: ছবি সংগ্রহকরা

About admin

Check Also

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগের আবেদন যেভাবে করবেন।।

অনলাইন ডেস্ক :     গত মাসে প্রকাশিত হয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের (ডিপিই) অধীন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *