Home / জাতীয় / দেশবাসীকে প্রধানমন্ত্রীর নববর্ষের শুভেচ্ছা…

দেশবাসীকে প্রধানমন্ত্রীর নববর্ষের শুভেচ্ছা…

অনলাইন ডেস্ক : দেশবাসী এবং প্রবাসী বাঙালি সহ সবাইকে বাংলা নববর্ষের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা,শনিবার বাংলা নববর্ষ ১৪২৬ উপলক্ষে এক বাণীতে প্রধানমন্ত্রী বলেন,আসুন আমরা সকলে বাঙালি জাতীয়তাবাদ এবং মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে আমরা ঐক্যবদ্ধভাবে দেশ ও জাতির কল্যাণে আত্মনিয়োগ করি,গড়ে তুলি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ক্ষুধা-দারিদ্র্যমুক্ত ও সুখী-সমৃদ্ধ স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ।
পহেলা বৈশাখ/বাংলা নববর্ষ ১৪২৬ আমাদের সবার জীবনে অনাবিল সুখ,শান্তি ও সমৃদ্ধি বয়ে আনবে এ প্রত্যাশা কামনা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন,নতুন বছরের প্রথম দিনে আমরা অতীতের গ্লানি ভুলে জীবনের এগিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় নিয়ে আশায় বুক বাঁধি,দেনা-পাওনা চুকিয়ে নতুন করে শুরু হয় জীবনের জয়গান,পহেলা বৈশাখ তাই যুগ যুগ ধরে বাঙালির মননে-মানসে শুধু বিনোদনের উৎস নয়,বৈষয়িক বিষয়েরও আধার।
বাংলা নববর্ষ এবং বাঙালি জাতীয়তাবাদ পরস্পর সম্পর্কযুক্ত এবং বাঙালি জনগোষ্ঠী বর্ষবরণ উৎসবকে ধারণ করেছে তাদের জীবনযাত্রা ও সংস্কৃতির অন্যতম অনুষঙ্গ হিসেবে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন,’বাংলা নববর্ষের উন্মেষ মূলত গ্রামীণ জীবন ঘিরে,হালখাতা উৎসব এবং গ্রামীণ মেলা ছিল একসময়ের মূল আকর্ষণ,হালখাতা উৎসব কালক্রমে প্রবেশ করেছে নগরজীবনে,দেশের প্রতিটি শহরেই পহেলা বৈশাখের বর্ষবরণ ঘিরে উৎসবের আমেজ তৈরি হয়,রাজধানী ঢাকায় আশির দশকের সংযোজন ‘মঙ্গল শোভাযাত্রা’, যা আজ জাতিসংঘের অঙ্গ-প্রতিষ্ঠান ইউনেস্কোর সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের তালিকায় স্থান করে নিয়েছে’।
নববর্ষ উপলক্ষে বিভিন্ন পণ্যের ক্রয়-বিক্রয়,হালখাতা,নতুন পোশাক এবং মিষ্টান্নসহ হরেক রকমের খাবারের জমজমাট আয়োজন,সব মিলিয়ে বাংলা নববর্ষ বিনোদনের পাশাপাশি দেশের অর্থনীতিতে নতুনত্ব এনেছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন,’আমরা বাঙালির এই শাশ্বত সর্বজনীন সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যকে সমুন্নত রাখতে নানা উদ্যোগ নিয়েছি,সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য বাংলা নববর্ষ উৎসব-ভাতা প্রবর্তন করা হয়েছে,আমরা আজ জাতির পিতার অসমাপ্ত কাজ বাস্তবায়ন করছি,গত ১০ বছরে আমরা দেশের প্রতিটি খাতে কাঙ্ক্ষিত অগ্রগতি অর্জন করেছি,আর্থসামাজিক উন্নয়নে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে ‘রোল মডেল’,জঙ্গিবাদ,সন্ত্রাসবাদ ও মাদক নির্মূলে আমাদের সরকার ‘জিরো টলারেন্স’ নীতি অনুসরণ করে কাজ করে যাচ্ছে’।
তিনি বলেন,’আমরাই বিশ্বে প্রথম শত বছরের ‘বদ্বীপ পরিকল্পনা ২১০০’ বাস্তবায়ন শুরু করেছি,অর্থনৈতিক অগ্রগতিতে বিশ্বের ৫টি দেশের একটি বাংলাদেশ,উন্নয়নের ৯০ ভাগ কাজই নিজস্ব অর্থায়নে করছি,গত ডিসেম্বরে অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জনগণ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে বিপুলভাবে বিজয়ী করেছে,দেশের মানুষ তার সরকারের ওপর যে দৃঢ় আস্থা রেখেছে,তার পরিপূর্ণ মূল্যায়ন করা হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন,আমরা ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে একটি মধ্যম আয়ের দেশ এবং ২০৪১ সালের আগেই উন্নত-সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করবো’।
(বি:দ্র:ছবি এবং তথ্য সংগ্রহকরা)

About motalib

Check Also

সাবেক আইনমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরুর মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শোক প্রকাশ।।

অনলাইন ডেস্ক :    রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ,প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা-সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির নবনির্বাচিত সভাপতি ও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *