Home / রাজশাহী / মশার অত্যাচারে অতিষ্ঠ চারঘাট পৌরবাসী-ফগার মেশিন তালাবদ্ধ।।

মশার অত্যাচারে অতিষ্ঠ চারঘাট পৌরবাসী-ফগার মেশিন তালাবদ্ধ।।

সংবাদদাতা : মোঃ সাইফুল ইসলাম রায়হান,চারঘাট রাজশাহী।

অনলাইন ডেস্ক: সারা দেশের ন্যায় রাজশাহীর চারঘাট পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা আন্দোলনে ব্যস্ত,বন্ধ রয়েছে নাগরিক সেবা।এতে বিভিন্ন সড়কের পাশে গড়ে উঠেছে ময়লা-আবর্জনার স্তুপ। সেখান থেকে দিন-রাত সার্বক্ষণিক পচা দুর্গন্ধ ছড়িয়ে দূষিত হচ্ছে এলাকার পরিবেশ।

পাশাপাশি ময়লার স্তূপগুলো এখন মশা উৎপাদনের খামারে পরিণত হয়েছে। এতে পৌর এলাকায় মশার উপদ্রব ভয়ানক হারে বেড়েছে। সেখানে মশার কামড়ে রাতে ঘুমাতে পারছে না সাধারণ মানুষ।

এদিকে মশা নিধন ও প্রজনন ধ্বংসে ওই পৌরসভায় উন্নত মানের একটি ‘ফগার মেশিন’ রয়েছে। তবে তা ব্যবহার করা হয় না।১৯৯৮  সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকে এ পর্যন্ত প্রথম শ্রেণির চারঘাট পৌরসভা এলাকায় মশা মারার জন্য কার্যকর কোনো পদক্ষেপ নেয়নি পৌর কর্তৃপক্ষ।

এ কারণে চারঘাট পৌর এলাকায় মশার উপদ্রব দিন দিন বাড়ছে। পাশাপাশি ব্যবহার না করায় মশা মারার জন্য লাখ টাকায় কেনা নতুন ওই ফগার মেশিনটি দীর্ঘ কয়েক বছর ধরে পৌর ভবনের স্টোররুমে তালাবদ্ধ হয়ে আছে।বিশেষ দিবসে মাঝে মধ্যে সেটা প্রদর্শন করা হয়।

এদিকে সারা দেশের মত চারঘাট পৌরবাসীও এডিস মশা আতঙ্কে রয়েছে।আগামী ঈদুল আযহাতে অনেকেই ঢ়াকা শহর থেকে চারঘাটে ফিরবেন।তখন হয়তো চারঘাটেও ডেঙ্গু রোগ ছাড়াবে।এজন্য চারঘাটবাসী আগে ভাগেই বিভিন্ন স্কুল, কলেজ ও সামাজিক সংগঠনের মাধ্যমে মশক নিধন ও পরিচ্ছন্নতা অভিযান চালাচ্ছে।কিন্তু চারঘাট পৌরসভা আন্দোলনের কারনে নিশ্চুপ এবং ফগার মেশিনটি তালাবদ্ধ করে রেখেছে।

চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা ডাঃ আফসানা আলমগীর খান জানান, মশার কামড়ে মানুষের মধ্যে নানা রোগ ছড়ায়।সেজন্য আমাদের সব সময়ই মশা নিধন ও পরিস্কার পরিচ্ছন্নের উপরে জোর দেওয়া উচিত।

রাজশাহী জেলা আ’লীগের সদস্য সাইফুল ইসলাম বাদশা বলেন, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী ভর্তি হয়েছে—এ খবর দ্রুত ছড়িয়ে পড়ায় এলাকার সাধারণ মানুষের মনে এখন ডেঙ্গু আতঙ্ক বিরাজ করছে। তবে এডিস মশাবাহিত ডেঙ্গুর হাত থেকে রক্ষা পেতে এলাকার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে নিয়মিত পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন কর্মসূচি পালন শুরু করছে।তিনি ফগার মেশিন পৌরসভায় তালাবদ্ধ না রেখে ব্যাবহারের দাবী জানিয়েছেন। চারঘাট পৌর সচিব রবিউল ইসলাম বলেন, ‘পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারীরা আন্দোলনে ঢাকায় রয়েছেন।সেজন্য আমাদের নাগরিক সেবা বন্ধ রয়েছে।তবে ফগার মেশিন একেবারে তালাবদ্ধ থাকে না,মাঝে মধ্যে পুলিশ একাডেমী,হাসপাতালসহ বিভিন্ন জায়গায় ব্যাবহার হয়।

About admin

Check Also

রাজশাহীর বাঘায় স্বাস্থ্যবিধি না মানায় বাড়ছে ঝুঁকি।।

মোঃ সাইফুল ইসলাম রায়হান-রাজশাহী। অনলাইন ডেস্ক :     রাজশাহী বাঘা স্বাস্হ্যবিধি না মানায় বাড়ছে ঝুঁকি। দ্বিতীয় …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *